সংবাদ বিজ্ঞপ্তিঃ গত ২১ মার্চ ২০২১ তারিখে ফেনীর সোনাগাজীতে আওয়ামী লীগ অফিসে আয়োজিত বর্ধিত সভায় আসন্ন পৌরসভা নির্বাচন নিয়ে আমার দেয়া বক্তব্যকে আংশিক ও বিকৃতভাবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক ও কিছু মিডিয়ায় প্রচার করে অপব্যাখ্যা ও অপপ্রচার করে জনমনে বিভ্রান্তি ছড়ানোর বিষয়ে সংশ্লিষ্ট সবার দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।

আসন্ন সোনাগাজী পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামীলীগ সভাপতি ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নৌকা প্রতীকের প্রার্থী এডভোকেট রফিকুল ইসলাম খোকন। নৌকার প্রার্থীর বিরুদ্ধে একটি চিহিৃতমহল অপপ্রচার ও ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হওয়ার খবর পাওয়া যাচ্ছে। সোনাগাজী আওয়ামী লীগের দলীয় অফিসে আয়োজিত ওই বর্ধিত সভায় আওয়ামী লীগের কিছু নেতাকর্মী ও একটি মহল নৌকাকে পরাজিত করে বিএনপি-জামায়াতের এজেন্ডা বাস্তবায়নে অপতৎপরতায় লিপ্ত রয়েছে।

গণতান্ত্রিক দেশে দল-মত নির্বিশেষ সবার নির্বাচন করার ও প্রার্থী হওয়ার সাংবিধানিক অধিকার রয়েছে। যারা নিজেদেরকে আওয়ামী লীগ দাবি করেন, কিন্তু জাতির জনকের কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার নৌকা মার্কার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত থাকবে তাদের ব্যাপারে আমি সেদিন কথা বলেছিলাম।

আমার বক্তব্য ছিল— আমাদের দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে। নির্বাচনে প্রতিদ্বন্ধি প্রার্থীদের বিরুদ্ধে নয়। আওয়ামী লীগ ও নৌকা মার্কার প্রার্থীর বিরুদ্ধে যারা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে তাদের সচেতন করার উদ্দেশ্যে বলেছি। ফেনী জেলা আওয়ামীলীগের নির্দেশনার বাহিরে গিয়ে যারা দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গ করে, স্বাধীনতা বিরোধী বিএনপি-জামায়াতের এজেন্ডা বাস্তবায়নে লিপ্ত রয়েছে তাদের ব্যাপারেই আমি সেইদিন কথা বলেছিলাম। আমার বক্তব্য আংশিক, খন্ডাংশ ও বিকৃতভাবে উপস্থাপন করে জনমনে বিভ্রান্তি ছড়ানো অত্যান্ত দুঃখজনক। সংশ্লিষ্ট সবাইকে এই ব্যাপারে সদয় ও সজাগ দৃষ্টি রাখার জন্য বিনীত অনুরোধ করছি।

— বিনীত
মেজবাউল হায়দার চৌধুরী সোহেল
চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ, ছাগলনাইয়া
সাধারণ সম্পাদক, ছাগলনাইায়া উপজেলা আওয়ামী লীগ।
২২ মার্চ ২০২১

Share Button